উত্তর সম্পাদকীয়

শিক্ষক দিবস

আগামীকাল জাতীয় শিক্ষক দিবস, অথচ বিশ্ব শিক্ষক দিবস ৫ অক্টোবর কিন্তু কেন ভারতে ৫ সেপ্টেম্বর পালন করা হয় শিক্ষক দিবস? সেই বিষয়ে আলোকপাত করলেন সংবাদ প্রতিখনের সাংবাদিক আত্রেয়ী দো

সমাজের অগ্রগতিতে শিক্ষকদের ভূমিকা অনস্বীকার্য,কারণ তারাই পারেন প্রকৃত পথের দিশা দেখাতে। শিক্ষকদের এই অবদানকে স্বীকৃতি দিতে ১৯৯৫ সালে ইউনেস্কো ৫ই অক্টোবর তারিখটিকে ‘বিশ্ব শিক্ষক দিবস’ হিসেবে ঘোষণা করে। তারপর থেকে প্রতিবছর বিশ্বব্যাপী এই দিনটি ‘বিশ্ব শিক্ষক দিবস’ হিসেবে পালিত হয়ে আসছে। বিংশ শতাব্দীর গোড়া থেকে বিভিন্ন দেশ শিক্ষক দিবস পালনে উদ্যোগী হয়। কিছু দেশ ইউনেস্কো স্বীকৃত দিনটিকে পালন করে আবার অনেক দেশ তাদের দেশের কোনো প্রখ্যাত শিক্ষাবিদকে বা কোনো বিশেষ স্বীকৃতি অর্জনের দিনটিকে উপলক্ষ করে ‘শিক্ষক দিবস’ হিসেবে পালন করে।

ভারতের এক অন্যতম আদর্শ শিক্ষক তথা স্বাধীন ভারতের প্রথম উপরাষ্ট্রপতি এবং দ্বিতীয় রাষ্ট্রপতি ড: সর্বপল্লী রাধাকৃষ্ণণ এর জন্মদিনটিকে ‘শিক্ষক দিবস’ হিসেবে পালন করা হয়। তিনি ১৮৮৮ সালের ৫ই সেপ্টেম্বর তামিলনাড়ুর তিরুট্টানিতে এক দরিদ্র ব্রাহ্মণ পরিবারে জন্মগ্রহণ করেন। এই মেধাবী ছাত্রটি প্রথম দিকে মহীশূর বিশ্ববিদ্যালয়ে অধ্যাপনা করেন। পরে কিছুদিন তিনি কলকাতা বিশ্ববিদ্যালয়েও অধ্যাপনা করেন। এছাড়াও দেশ-বিদেশের বিভিন্ন বিশ্ববিদ্যালয় থেকে অধ্যাপনার আমন্ত্রণ পান। ১৯৩১ সালে তাঁকে ‘ব্রিটিশ নাইটহুড’ সম্মানে ভূষিত করা হয়। ১৯৫৪ সালে তিনি ভারতরত্ন পান। ১৯৬২ সালে রাষ্ট্রপতি হিসেবে নির্বাচিত হওয়ার পর তাঁর গুণমুগ্ধ ছাত্র-ছাত্রীরা তাঁর জন্মদিন পালনের আয়োজন করলে তিনি জানান তাঁর জন্মদিন পালনের পরিবর্তে এই দিনটি ‘শিক্ষক দিবস’ হিসেবে পালন করলে তিনি খুশি হবেন। ১৯৬২ সাল থেকে তাই ভারতে প্রথম ‘শিক্ষক দিবস’পালিত হয়। তারপর থেকে বর্ষব্যাপী ৫ই সেপ্টেম্বর দিনটি ‘শিক্ষক দিবস’ হিসেবে পালিত হয়ে আসছে।