খবর

লকডাউনে বন্ধ কারখানা, আর্থিক অনটনে আত্মহত্যা

p6প্রবীর বোস:  টানা লক ডাউনে ফ্যাক্টরি বন্ধ থাকার ফলে মাইনা না পাওয়ার কারণে গলায় দড়ি দিয়ে আত্মহত্যা করলেন এক শ্রমিক। আজ এই মর্মান্তিক ঘটনাটি ঘটেছে হুগলির চন্দননগরের গর্জি তে । উত্তম ঘোষ নামে মধ্যবয়স্ক এই ভদ্রলোক স্থানীয় একটি কেমিক্যাল কারখানায় কাজ করতেন। কিন্তু এরপর লক ডাউনের সময় টানা চার মাস ফ্যাক্টরি বন্ধ থাকায় কারখানা কর্তৃপক্ষ তাকে মাহিনা না দেওয়ায় চরম আর্থিক অনটনের মধ্যে পড়েছিলেন উত্তম বাবু ।আজ সকালে নিজের বাড়িতে গলায় দড়ি দিয়ে আত্মঘাতী হন তিনি। মৃতের পুত্র সুপ্রিয় ঘোষ জানালেন দীর্ঘদিন মাইনা না পাওয়ায় সংসার অচল ছিল তার ওপর যেহেতু বাবা কেমিক্যাল ফ্যাক্টরিতে কাজ করতেন তার জন্য শরীর অসুস্থ ছিল কিন্তু পয়সা করি না পাওয়ায় ঠিকমতন চিকিৎসার বন্দোবস্ত করা যায়নি এবং মানসিকভাবে অবসাদগ্রস্ত ছিলেন তিনি যার জন্যই আজকে এই ঘটনা। অন্যদিকে চন্দননগর মিউনিসিপাল কর্পোরেশনের প্রাক্তন কাউন্সিলর পার্থ চক্রবর্তী জানান যে উত্তম বাবু যে কারখানাটিতে কাজ সেখান থেকে দীর্ঘদিন তিনি মাহিনা পাননি । আর্থিক অনটন ছিল এর উপর নতুন বাড়ি করতে গিয়ে প্রচুর ধার-দেনা হয়ে গিয়েছিল কিন্তু কারখানা কর্তৃপক্ষ তাকে ভিআরএস নিতে বলেছিল এবং তার পাওনা-গন্ডাও ঠিকমত না দেওয়ায় চরম আর্থিক অনটনের মধ্যে ছিল যার জন্যেই আজকের এই মর্মান্তিক ঘটনা।