খবর

পর পর তিনবার রাজ্যের মসনদে মমতা

mamta-2নিজস্ব সংবাদদাতা: এবার নিয়ে পর পর তিনবার, রাজ্যের মসনদে আসীন রাজ্যের মানবিক মুখ মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। গতকাল ৫ মে রাজভবনে এক অনাড়ম্বর অনুষ্ঠানে পশ্চিমবঙ্গের রাজ্যপাল জগদীপ ধনকর মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়কে তৃতীয় বারের জন্য এই রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রী হিসাবে শপথ বাক্য পথ করান। নানা অপমান, নানা অপবাদ, দেশের কেন্দ্রীয় স্তরের নেতা থেকে শুরু করে বেশ কিছু রাজ্যের প্রধান সহ একঝাঁক নেত্রা-মন্ত্রীদের মরনপন লড়াইকে এবং সকলের সম্মিলিত প্রয়াসকে ধুলিস্যাৎ করে মমতা প্রমাণ করলেন বাংলা আবারও জবাব দিল কুত্‍সার। যথারীতি তৃণমূলের এই জয়কে মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় মা মাটি মানুষের জয় বলে রাজ্যের সকল জনসাধারনকে কৃতজ্ঞতা জ্ঞাপন করেছেন। এর সঙ্গে সঙ্গে তিনি এও জানিয়েছেন যেহেতু এই মূহুর্তে সারা দেশের সঙ্গে পশ্চিমবঙ্গেও চলছে করোনার করাল থাবার হানা, তাই রাজ্যের নতুন সরকারের প্রধান কাজই হবে করোনার বিরুদ্ধে লড়াই করা। এই বিষয়ে তিনি সকল জনবসাধারনের সাহায্য প্রার্থনা করেছেন।

এর সঙ্গে সঙ্গে তিনি ঘোষণা করেছেন তিনি সমগ্র পশ্চিমবঙ্গবাসীকে বিনামূল্যে করোনার ভ্যাকসিন দিতে বদ্ধপরিকর। এবারের ভোটে যে কথাটি সবথেকে বেশি আলোচিত ছিল সেটি হলো “খেলা হবে”, এবং প্রকৃতপক্ষে খেলাই হলো এই রাজ্যের এবারের বিধানসভা ভোটে একথা বলাই যায়, এবং যে খেলায় জিত্‍ হল দেশের অন্যতম মোদী বিরোধী মুখ মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের একথা বলাই বাহুল্য। ভোটের প্রচারে এবার পশ্চিমবঙ্গে দেশের প্রধানমন্ত্রী, স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী, সহ বিভিন্ন কেন্দ্রীয় মন্ত্রী সহ বিজেপির তাবড় তাবড় নেতাদের আগমনে সারা দেশ তথা বিদেশের সংবাদ মাধ্যমের নজর ছিল বঙ্গ রাজনীতির দিকে। যদিও এইবার পশ্চিমবঙ্গ সহ তামিলনাডু, কেরল, অসম, পুদুচেরী দেশের আরও চারটি রাজ্যের সাধারণ নির্বাচন থাকলেও বাংলা দখলের লড়াইতে মেতে উঠেছিলেন বিজেপির কেন্দ্রীয় নেতৃত্ব। তার সঙ্গে যোগ দিয়েছিলেন জনগণের জন্য কাজ করতে চাওয়া তৃণমূল কংগ্রেসের একঝাঁক নেত্রা মন্ত্রীর দল, যাঁরা নির্বাচনের আগে রীতিমত ঘোষণা করে দলত্যাগ করেছিলেন জনগণের জন্য কাজ করতে মনোবাঞ্ছা প্রকাশ করে। যদিও নির্বাচনের ফল কিন্তু অন্য ছবি তুলে ধরলো সারা দেশের কাছে, প্রায় প্রত্যেকদিন দিল্লি থেকে বিজেপির নেতাদের বঙ্গে আগমন ও রাজ্যের তৃণমূল কংগ্রেসকে পরাস্ত করতে ও বাংলার মানুষকে নতুন করে সংস্কৃতি শেখাতে গিয়ে এবং দলত্যাগী তৃণমূলীদের নিয়ে মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের বিরুদ্ধে লড়াই করতে গিয়ে নিজেরেয়াই মুখ থুবড়ে পড়লেন এই মূহুর্তে ভারতের সর্ববৃহত্‍ রাজনৈতিক দল বলে দাবি করা বিজেপি।mamta-6 বিশেষ করে উল্লেখযোগ্য পশ্চিমবঙ্গ সহ দেশের অন্য যে কটি রাজ্যে বিধানসভা নির্বাচন ছিল তার ফল প্রকাশে দেখা গেল ভারতের একমাত্র পুদুচেরী আর উত্তরপূর্বের অসম ছাড়া বাকি তিনটি রাজ্যে বিজেপি ধরাশায়ী।  অপরদিকে এই রাজ্যের নন্দীগ্রাম নিয়ে এক নতুন নাটক দেখল সারা দেশ।

advt

new-advt-sankha-sen

advt-3

advt-1

149274739_1955175504622875_8761804105952090197_o

149560606_1955498754590550_7537541499495602122_o

gnc-advt-6x4-for-web

Untitled-2

\gif advt

advt-5

advt-4

advt-2