দেশ

ত্রিপুরায় বন্ধ ইন্টারনেট পরিষেবা

3659.jpgত্রিপুরা থেকে শিবজ্যোতি মল্লিক: ত্রিপুরায় আগামী ৪৮ ঘন্টার জন্য বন্ধ করা হল ইন্টারনেট পরিষেবাও ফেসবুক সহ সকল সামাজিকও মাধ্যম। ত্রিপুরাতে গতকাল থেকেই নাগরিক সংশোধনী বিল ইস্যুতে শুরু হয়েছে বিরিদ্ধ ও বন্ধ।  ত্রিপুরার নানা জেলায় বন্ধকে কেন্দ্র করে উত্তেজনার কারণে ও সামাজিকও মাধ্যমে গুজব যাতে না ছড়ায় সেই কারণে ইন্টারনেট পরিষেবা বন্ধ রাখা হল বলে সংবাদে প্রকাশ। বন্ধ সমর্থকরা ধলাই জেলার মনুঘাট এলাকায় স্থানীয় দোকান ভাঙ্গচুর করলে তাদের হটাতে পুলিশকে শূন্যে তিন রাউন্ড গুলি চলতে হয় বলে সংবাদে প্রকাশ। এইইস্যুতে থমথমে সারা ত্রিপুরার বিভিন্ন অঞ্চল। ত্রিপুরার মুঙ্গিয়াকামীতেও শুরু হয়েছে আইএনপিটির এডিসি এলাকা বন্ধ কর্মসূচী। গতকালের রেলপথ অবরোধের পর আজ এরা মুঙ্গিয়াকামীতে আসাম-আগরতলা জাতীয় সড়কে অবরোধে বসে।

নেতৃত্ব দেন আইএনপিটির রাজ্য নেতৃত্ব তথা প্রাক্তন এমএলএ রঞ্জিত দেববর্মা। সকাল ৬টার আগেই আইএনপিটির কর্মী-সমর্থকরা মুঙ্গিয়াকামী বাজারে উপস্থিত হয়। পরে ৬টা নাগাদ আসাম-আগরতলা জাতীয় সড়কে অবরোধ করে। পূর্ব ঘোষিত কর্মসূচী হওয়ায় যান চলাচল ছিল সম্পূর্ণ বন্ধ। খোলেনি কোন  দোকানপাট। বন্ধ ছিল সরকারী অফিসগুলিও। এদিকে আইএনপিটির ডাকা বন্ধকে নিয়ে যাতে কোন অঘটন না ঘটে তার জন্য আগে থেকেই আরক্ষা দপ্তর সজাগ ছিল। অবরোধকারীদের অনেক বলার পরও অবরোধ না তোলার তাদেরকে গ্রেপ্তার করে পুলিস। নিয়ে যায় মুঙ্গিয়াকামী দ্বাদশ শ্রেণী বিদ্যালয়ের মাঠে।

 আইএনপিটির রাজ্য নেতৃত্ব তথা প্রাক্তন এমএলএ রঞ্জিত দেববর্মা জানান, নাগরিকত্ব সংশোধনী বিলের প্রত্যাহারের দাবিতে আমাদের বন্ধ। তিনি বলেন, এই বিল শুধু ত্রিপুরা বা উত্তর-পূর্বাঞ্চলের জন্যই নয়, গোটা দেশের জন্য ভয়ংকর। কারণ এটি চালু হলে বিদেশীরা সুযোগ পাবে।  আর বঞ্চিত হবে প্রকৃত নাগরিক। অবিলম্বে এই বিল প্রত্যাহার করা হোক। অন্যথায় বন্ধ চলবে।

rishav-new-2-for-web

3b749-9a4f02_0a1a6303df76450fb31ff36c7368e2a1mv2

1efab-9a4f02_51435a5163204d4c9eb67ab6f3a56a68mv2

09828-9a4f02_2afa9dc21c6840f781c9711a60cb7e45mv2

chetana

afc10-9a4f02_3b93dab5c7d14f67afae52ceac3ab2d5mv2