Uncategorized

বিপদ

আয়রে ছুটে আয় ছুটির গন্ধ এসেছে। গরমের ছুটি দোরগোড়ায় কড়া নাড়ছে। মাধ্যমিক, উচ্চ-মাধ্যমিক সহ অন্য বোর্ডের পরীক্ষাও শেষ। কাজেই হাতে গরম টুক করে বেরিয়ে পড়তে পারলেই হলো। আর এই বেরিয়ে পড়তে আমাদের জুড়ি মেলা ভার। আর এই তাগিদেই আমাদের রন্ধ্রে রন্ধ্রে পর্যটন যেন জড়িয়ে রয়েছে। তাইতো নিজের ঘোরার তাগিদটাকে উস্কে দিয়ে আজ আমরা সারা ভারতে পর্যটন প্রেমী হিসাবে নিজেদের মেলে ধরতে সক্ষম। আর ঠিক এই কারণেই আমাদের পশ্চিমবঙ্গে অলিতে-গলিতে বেসরকারি ভ্রমণ সংস্থার ভিড়। একটু লক্ষ্য করলে দেখা যায় বা পরিসংখ্যান নিলে দেখা যাবে আমাদের রাজ্যে প্রায় প্রতিদিনই কিছু না কিছু এই রকম বেসরকারি ভ্রমণ পরিষেবা প্রদানকারী সংস্থা গজিয়ে উঠছে, আবার বেশ কিছু হারিয়ে যাচ্ছে। এর সঙ্গে যুক্ত হয়েছে সামাজিকও মাধ্যমে তৈরি হয়ে উঠেছে বেশ কিছু দল, যারা বকলমে কাজ করে চলেছেন বেসরকারি ভ্রমণ সংস্থা হিসাবে। হয়তো এর মধ্যমে উপকৃত হচ্ছেন ভ্রমণ পিপাসু মানুষজন। তবে যে জিনিসটা ভাবার সেটি হ’ল যে বা যারা এই সকল সামাজিকও মাধ্যমে দল বানিয়ে নিজেরাও ঘুরছেন ভ্রমণ পিপাসুদের পয়সায় তারা নিজের কতটা পারদর্শী? বা যারা ঘুরতে যাচ্ছেন তারা কতটা ভাল ভাবে নিজেদের ঘোরার রস আস্বাদন করতে পারছেন? এভাবে চলতে থাকলে আগামীতে বেসরকারি ভ্রমণ সংস্থাদের ভবিষ্যত্‍ নিয়ে ভাবার সময় মনে হয় উপস্থিত। এগিয়ে আসা উচিত বেসরকারি ভ্রমণ কারবারে যুক্ত সকল মানুষদের না হলে আগামীতে সমূহ বিপদ।

Categories: Uncategorized